মহেশপুরে নেশাগ্রস্ত যুবকের হাতে মা ও নানী খুন

image_titleঝিনাইদহের মহেশপুর পৌর এলাকার নওদা গ্রামে ইমরান হোসেন (২৬) নামে এক নেশাগ্রস্তের হাতে খুন হয়েছেন তার মা ও নানী।বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত আড়াইটার দিকে এ ঘটনা ঘটে।এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত আনুমানিক আড়াইটায় নেশাগ্রস্ত ইমরান হোসেন ঘরে ঢুকে প্রথমে তার নানী শামছুন নাহারকে (৭০) এলোপাতাড়ি কোপায় ও পরে তার মা মহেশপুর বালিকা বিদ্যালয়ের ল্যাব অ্যাসিস্ট্যান্ট মর্জিনা খাতুনকে (৫৫) পেটে ছুরি মেরে আহত করে। এ সময় চিৎকার শুনে প্রতিবেশীরা ছুটে এলে ইমরান পালিয়ে যায়।

আহত অবস্থায় মর্জিনা ও শামসুন নাহারকে যশোর সদর হাসপাতালে নেয়ার পথে ভোর ৪টার দিকে তারা মারা যান।নিহত মর্জিনার প্রতিবেশি চাচাতো বোন শাহিদা খাতুন জানান, নিহত মর্জিনার সাথে ২০ বছর আগে স্বামীর সাথে ছাড়াছাড়ি হয়। এরপর থেকেই তিনি ছেলেকে নিয়ে তার মায়ের সাথে নওদাগ্রামে বসবাস করছিলেন।তিনি আরো জানান, নেশাগ্রস্ত ছেলে ইমরান টাকার জন্য প্রায়ই তার মা ও নানীকে মারধর করতো। তাকে বিভিন্ন মাদকাসক্তি নিরাময় কেন্দ্রে ভর্তি করে চিকিৎসাও দেয়া হয়েছে।মহেশপুর থানার ওসি রাশেদুল আলম জানান, ছেলেটি মানসিক ভারসাম্যহীন ছিলো। পারিবারিক কলহের কারণে তার মা ও নানীকে হত্যা করে। হত্যাকারীকে ধরার চেষ্টা করা হচ্ছে।।