শেষবারের মতো এফডিসিতে যাবেন টেলি সামাদ

image_titleদেশের সবচেয়ে জনপ্রিয় বিদ্যাপিঠ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে উচ্চ শিক্ষা নেয়া টেলি সামাদ চাইলেই অন্য যে কোনো কিছুতে ক্যারিয়ার গড়তে পারতেন। কিন্তু কৌতুক অভিনয়কে ভালোবেসে তিনি নেমে পড়েছিলেন অভিনয়ের আঙিনাতেই।
নানা মাধ্যমে অভিনয় করলেও চলচ্চিত্রের টেলি সামাদকেই মানুষ চিনেছে, ভালোবেসেছে। নানা রকম সিনেমায় চার চারটি দশক তিনি মাতিয়ে রেখেছিলেন অভিনয়ে।

প্রজন্ম থেকে প্রজন্মে তিনি একজন হাসির ফেরিওয়ালা হয়ে হাসি বিলিয়েছেন মানুষের মনে-অন্তরে।
সবাইকে কাঁদিয়ে আজ তিনি জীবনের ওপারে। চলছে তার শেষ বিদায়ের প্রস্তুতি। টেলি সামাদের মেয়ে সোহেলি সামাদ কাকলী নিশ্চিত করেছেন, শনিবার, ৬ এপ্রিল বাদ মাগরিব রাজধানীর পশ্চিম রাজাবাজারে অনুষ্ঠিত হবে তার প্রথম জানাজার নামাজ। তার দ্বিতীয় জানাজা অনুষ্ঠিত হবে মগবাজারে। এরপর মরদেহ রাখা হবে হিমঘরে।
এদিকে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির সাধারন সম্পাদক জায়েদ খান নিশ্চিত করেছেন, রোববার সকালে টেলি সামাদকে শেষবারের মতো আনা হবে এফডিসিতে। বেলা ১১টায় অনুষ্ঠিত হবে তার তৃতীয় জানাজা।
তিনি বলেন, ‘টেলি সামাদ ভাই চলচ্চিত্রের উজ্জ্বল নক্ষত্র। তার বিদায় আমাকে, আমাদের চলচ্চিত্র পরিবার সবাইকে শোকে আচ্ছন্ন করেছে। আমরা তাকে শেষবারের মতো এফডিসিতে নিতে চাই। তার জানাজায় দাঁড়িয়ে তার জন্য দোয় করতে চাই। আগামীকাল রোববার সকাল ১১টায় জানাজা অনুষ্ঠিত হবে।’
জানা গেছে, এফিডিসিতে তৃতীয় জানাজা শেষে টেলি সামাদের মরদেহ নিয়ে যাওয়া হবে মুন্সিগঞ্জ জেলার নওগাঁয়। সেখানেই পারিবারিক কবরস্থানে চিরনিদ্রায় যাবেন ঢাকাই সিনেমার কিংবদন্তি অভিনেতা টেলি সামাদ।
এলএ/এমকেএইচ