আপনার-রাশিফল

মেষ ২১ মার্চ-২০ এপ্রিল। ভর # ৬
বহুবার বলেছি, মেষ নারী-পুরুষের মধ্যে আছে সহজাত সৃজনশীলতা, যদিও সবার মধ্যে এর মাত্রা হয়তো একই থাকবে না। দেখুন, যেকোনো মানুষকে যেকোনো কাজে সাফল্য পেতে গেলে তার মধ্যে যেকোনো মাত্রার সৃজনশীলতা থাকতেই হবে। যেমন ধরুন ব্যবসা। এটা একটা সৃষ্টিশীল কাজ। বলা বাহুল্য, মগজে যাঁর ঘিলু কম...তিনি কিন্তু বড় শিল্পী কিংবা শিল্পপতি/ব্যবসায়ী...কোনোটাই হতে পারবেন না। কেউ এমনকি সফল চাকরিজীবী হতে গেলেও তাঁর সৃষ্টিশীল মস্তিষ্ক থাকতে হবে। কারণ, সৃষ্টিশীলতায় ঘাটতি থাকলে খুব স্বাভাবিকভাবেই তাঁর মাথায় সর্বক্ষণ ঘুরপাক খাবে নকল করার অদম্য প্রবণতা। এ দিয়ে খুব বেশি দূর যাওয়া সম্ভব নয়। প্রিয় মেষ, চলতি সাত দিনে আপনার চিন্তা ও কল্পনার মৌলিকত্ব বহুগুণ বেড়ে যাবে।
বৃষ ২১ এপ্রিল-২১ মে। ভর # ১
কোন ছবিতে মনে নেই, উত্তমের ঠোঁটে হেমন্ত মুখার্জির একটা গান শুনেছিলাম: নীলামওয়ালা।...টাকাওয়ালার একমাত্র ছেলে উত্তমকে তাঁর বাবা বাড়ি থেকে বের করে দেন কোনো এক অলঙ্ঘনীয় কারণে। উত্তম ফেরিওয়ালার কাজে নামেন। গানের অন্য অংশ: ঘর সাজাবার স্বপ্ন দেখ কোথায় আমার গরিব ভাই...। প্রাণের নায়ক ধনীর পুত্র সুদর্শন উত্তমের এই হতদরিদ্র অবস্থা দেখে বাঙালি নারী-দর্শককুলের বুক ফেটে যায়। তবু তাঁরা বারবার সিনেমা হলের টিকিট কাটেন আর স্বেচ্ছা কান্নার বিলাস ভোগ করেন। জবাব নেই চতুর নির্মাতাগণের! হিট হিট হিট! প্রিয় বৃষ, চলতি সপ্তাহে দূর অতীতের কিছু কান্না-হাসির স্মৃতি আপনার মনকে দুলিয়ে দিয়ে যাবে। আপনি তৈরি থাকবেন।
মিথুন ২২ মে-২১ জুন। ভর # ৬
চলতি সপ্তাহটা আপনার কাটবে থোড়াসা চিপা-খাওয়া অবস্থার মধ্য দিয়ে। বাট ডোন্ট ঘাবড়াও মেরে পেয়ারে দোস্ত মিথুন, বেশি কিছু ক্ষতি আপনার নেহি হো গা।...মিথুনের স্বাস্থ্য ও রোগপ্রতিরোধক্ষমতা স্বাভাবিকভাবেই খুব ভালো। এ সপ্তাহে এরই একটা প্রমাণ পাওয়া যাবে। তবু টেক কেয়ার, নিজের যত্ন নেবেন। ঘুম, খাওয়াদাওয়া ঠিক রাখবেন। বাংলাদেশি জনগোষ্ঠীর গড় আয়ু বেড়ে গেছে নানা অনুকূল কারণে। আপনিও এর পাওনাদার। তাহলেও মাত্রার অতিরিক্ত কিছুই যে ভালো নয়...এ কথা তো ঠিক, তাই না? কাজেই স্বস্বাস্থ্য পরিচর্যার ব্যাপারেও অতিরিক্তে খ্যাত খ্যাত করবেন না। সহজ স্বাস্থ্যবিধিগুলো মেনে চললেই যথা+ইষ্ট=যথেষ্ট। হাত ব্যথা হয়ে গেল, ওফ্ আর না!
কর্কট ২২ জুন-২২ জুলাই। ভর # ২
অনেকেরই অভ্যাস আছে বই-পত্রপত্রিকার শেষের পৃষ্ঠা আগে খোলা। আমার তো আছে। জানি না, মনোবিজ্ঞানে এর কোনো ব্যাখ্যা আছে কি না। তবে এই অভ্যাসের জন্য তো আর জেল-ফাঁসি হওয়ার ভয় নেই। বরং আনন্দ বা ভালো লাগাটাই বেশি। অনেকের আছে নতুন বইয়ের গন্ধ গ্রহণের দুর্দমনীয় অভ্যাস।...আচ্ছা, বইখোররা বই হাতে পেলেই চটকায়! আবার দেখুন, ইঁদুর কুটকুট অ্যান্ড কুচিমুচি করে কাগজ কেটে যা-তা অবস্থার সৃষ্টি করে। বিধাতা যে কত প্রাণীর জন্য কত রকম খাদ্য নির্ধারণ করে দিয়েছেন।...ভাবতে বেশ মজাই লাগে। এক প্রাণী অন্য প্রাণীর খাদ্যবস্তু। ডারউইনের তত্ত্ব লাগবে না, টিভিতে ডিসকভারি বা অ্যানিমেল প্ল্যানেট চ্যানেল দেখুন। আমি তো সময় পেলে লম্বা সময় ওসব দেখেই কাটিয়ে দিই। প্রিয় কর্কট, আমি জানি, এসব পড়তে পড়তে আপনি আমার ওপর রেগে বোম হয়ে যাচ্ছেন।
সিংহ ২৩ জুলাই-২৩ আগস্ট। ভর # ১
আমি রাশি লিখি, গানটান ইত্যাদিও লিখি কিছু কিছু। মূলে আমি ছবি আঁকতাম এবং ‘টুক অ্যান্ড টাক’ টুকটাক লেখালেখি করতাম। নিখাদ আলস্যের কারণে নিরন্তর চেষ্টা চালাইনি। ফলে বড় কোনো সাফল্যও পাইনি। কেউ আমাকে জ্যোতিষী, অ্যাস্ট্রলজার ইত্যাদি বললে মনে মনে আমি লজ্জাই পাই। না, মানুষের ভালোবাসায় আমি সিক্ত থাকি সব সময়ই। বাট কিন্তু এই ভালোবাসাটা ‘জইতিশি’ হিসেবে না পেয়ে অন্য কিছু থেকে পেলে সেটা আরও বহুগুণ বেশি আনন্দের হতো আমার জন্য।...এই তো দেখুন, আপনি আমার ওপর চটে যাচ্ছেন, যেহেতু আমি সিংহের ধারকাছ দিয়ে ‘যাস্ সি’ না। নিন তাইলে বলি: এ সপ্তাহে কেউ আপনাকে অপমান করার চেষ্টা করতে পারে। করলে আমাকে বলবেন। এমন বাণ মারব যে ‘অক্কারে’!...
কন্যা ২৪ আগস্ট-২৩ সেপ্টেম্বর। ভর # ২
আমার জানা দুজন কন্যা নারী আছেন...নিজ নিজ পেশাক্ষেত্রে যাঁরা উজ্জ্বল। এঁদের একজন শিল্পী মহলানবীশ, অন্যজন অভিনয়শিল্পী বন্যা মির্জা। শিল্পী মহলানবীশের গানের গলাটা এত মিষ্টি যে চমকে ওঠার মতোই। অবশ্য বাইরে গান তিনি করেন না। এ মা, আমি তো লিখতে বসেছি কন্যা রাশির সব জাতক-জাতিকার জন্য! ত্বরিৎ ক্ষমা চেয়ে নিয়ে বলি: কন্যা কন্যা কন্যা/কর আজ মোরে তুমি ধন্যা/শরতের কাশফুলে তব রূপ/এনে দিক আলোকিত বন্যা। বার্তা: চলতি সপ্তাহে একটি প্রবল আনন্দের জোয়ার এসে আপনাকে ভাসিয়ে নিয়ে যাবে দিগন্তের দিকে।
তুলা ২৪ সেপ্টেম্বর-২৩ অক্টোবর। ভর # ২
আল আমিন আমার জীবনের একজন অপরিত্যাজ্য গৃহসেবী কিশোর। বয়স মাত্র ১৯ বছর। বাড়ি ময়মনসিংহের ফুলবাড়িয়া। আমার লেখা গান ওর বিশেষ পছন্দ। মাঝে মাঝে হাত-মুখ নেড়ে গেয়ে উঠে আমাকে শোনায় (আজ এই বৃষ্টির কান্না দেখে, যেখানে সীমান্ত তোমার, আমায় ডেকো না, এই দেশে এক শহর ছিল...শহরে এক রাস্তা ছিল/রাস্তার ধারে এক বাড়ি ছিল/বাড়ির নাম এলোমেলো...ইত্যাদি)। আল আমিন বলেছে, জীবনেও আমাকে ছেড়ে যাবে না। শুনে আমার বুকটা ভরে যায়। তা সত্ত্বেও মনে আসে প্রিয় কবি বুদ্ধদেব বসুর কবিতার চরণ: ভুলিব না-এত বড় স্পর্ধিত শপথে/জীবন করে না ক্ষমা/তাই মিথ্যা অঙ্গীকার থাক/তোমার স্মৃতির মায়া/সুদূরে মিলাক।...চলতি সপ্তাহটা তুলার জন্য ৮০-৮৫ শতাংশ শুভ এবং সফল হবে।
বৃশ্চিক ২৪ অক্টোবর-২২ নভেম্বর। ভর # ২
প্রধানত আমি আজিমপুর কলোনিতে মানুষ কিংবা অমানুষ হয়েছি, সেই ১৫ বছর বয়স থেকে। বন্ধুমহলের সবাই আজ নিজ নিজ পেশায় প্রতিষ্ঠিত। এদের মধ্যে আমার সবচেয়ে কাছের এক বন্ধু হচ্ছে বৃশ্চিক পারভেজ শাহেদ। সে ছিল বিমানের পাইলট এবং চিফ পার্সারও। অসম্ভব মেধাবী। অসামান্য এক বাঁশি-শিল্পী ও হস্তরেখা-বিশারদ। ওর উদ্ভাবিত রাগ আছে কিছু। অগাধ জ্ঞানী, বিরাট মন ও মেধা...অথচ চলাফেরায় সহজ-সরল। ওর ব্যক্তিত্বের কাছে আপনা থেকেই মানুষের মাথা অবনত হয়ে আসে। বাঁশিতে ফুঁ দিলে উদাস হয়ে যায় মানুষের মন। আমরা পুরোনো বন্ধুরা যদি কখনো আড্ডায় বসি...তাহলে আর উপায় নেই। তবে সবারই এখন নিজের জন্য খরচ করবার মতো সময়গুলো কমে গেছে। তবু তো আনন্দ। প্রিয় বৃশ্চিক, দরিদ্র জ্যোতিষী চলতি সপ্তাহে আপনাকে জানাচ্ছে...সপ্তাহ আপনার কাটবে ভালোই।
ধনু ২৩ নভেম্বর-২১ ডিসেম্বর। ভর # ৯
আমি ধনু এবং একটি খেলোয়াড় পরিবারের সদস্য, বংশসূত্রেই। আমাদের সব থেকে ছোট ভাইটা এখন সিলেটের ক্রিকেট সংগঠক। ওর নাম যায়েদ আহমেদ চৌধুরী। সিলেট স্টেডিয়ামের একেবারে কাছেই আমাদের বাড়িটা। খেলার চিন্তা ও কাজ ছাড়া ও অন্য কিছু করে না। আপনি যদি সিলেট বাস-ট্রেন-বিমানবন্দরে নেমে গন্তব্য-ঠিকানা ভুলে যান, তাহলে যেকোনো যানবাহনের চালককে বলবেন: স্টেডিয়ামের যায়েদ ভাইয়ের বাসায় যাব। ব্যস, হয়ে গেল। মজার উপাধি না? আমার ভাইয়ের বউ শাহীন অসাধারণ একটা মেয়ে। পরিবারে সবার আদরের। (একবার সিলেটে বসে ওকে দিয়ে রাশি অনুলিখন করিয়েছিলাম, মনে আছে)। প্রিয় ধনু, চলতি সপ্তাহটি আপনার কাটবে প্রচণ্ড কাজের ব্যস্ততা, সামাজিকতা ও আনন্দ-উৎসবে, বিয়ের দাওয়াত, জন্মদিন ইত্যাদি।
মকর ২২ ডিসেম্বর-২০ জানুয়ারি। ভর # ৩
কিশোর বয়সে আকাশবাণী কলকাতা থেকে দুজন নারীশিল্পীর রেকর্ড শুনতাম, বেশির ভাগ ছড়ার গান গাইতেন এঁরা: একজন আলপনা বন্দ্যোপাধ্যায়, অন্যজন বাণী ঘোষাল। আলপনারই সুনাম বেশি ছিল, কিন্তু বাণী ঘোষালের কণ্ঠস্বরে মাদকতা ও এত বেশি বৈশিষ্ট্য ছিল যে কানে গেলেই গায়ের লোম খাড়া হয়ে যেত। ভাবছি, ইউটিউবে আলপনা, বাণী এঁদের দুজনকে খুঁজব। প্রিয় মকর, চলতি সপ্তাহে আপনি যথারীতি আপনার বকর বকর দিয়ে সবাইকে একই সঙ্গে মুগ্ধ এবং বিরক্ত করবেন বলেই তো মোর মনে লয়। শুনুন, প্রিয় অপ্রিয় অত্যন্ত জনপ্রিয় মকর, এ সপ্তাহের শেষ অংশটা আপনার জন্য নতুন কিছু ‘সুখানন্দ’ নিয়ে আসবে...আমার রাশির অঙ্ক তা-ই বলে।
কুম্ভ ২১ জানুয়ারি-১৮ ফেব্রুয়ারি। ভর # ৯
আপনাকে শাস্তি দেবার জন্য প্রথমেই আমার নিজের প্যাঁচাল পাড়তে শুরু করি। গালি দিতে চান তো পরে দিয়েন, এখন না। নিজের কথা আর তেমন কী থাকতে পারে আমার...কবিতা, ছবি, গান, নাটক, সিনেমা, খেলাধুলা ইত্যাদি ছাড়া। ভাবছেন...ব্যাটা জইতিশির ঢং কত, তাই না? আরে মুই হইলাম অত্র এলাকার একজন যৎসামান্য গণ্যমান্য মানুষ। হামাক আপনে পাত্তা দিতে চান না! লে বাবা, কুম্ভ রাশি নিয়ে আজ কিছুই বলব না। না রে, ঠাট্টা করলাম। চলতি সপ্তাহ আপনার কাটবে বত্রিশ চিমটি হাসি অ্যান্ড চার চা-চামচ চোখের জলের মাঝখান দিয়ে। কী, এখন দেখি আপনার অন্য ভাব। বার্তা শুনেই আহ্লাদে আটখান হয়ে গেলেন বিপ্লবী কুম্ভ।
মীন ১৯ ফেব্রুয়ারি-২০ মার্চ। ভর # ৩
প্রিয় অ্যান্ড শ্রদ্ধেয় মীন, আপনার রাশি যখন লিখছি...তখন সকাল কাঁটায় কাঁটায় ঠিক ৬টা ৬০ মিনিট, অর্থাৎ ৭টা। রাত দুটোর দিকে মেষ রাশির খোপ তৈরি করতে শুরু করেছিলাম। আমার কষ্ট ১২ রাশির জাতিকা-জাতক কেউ বুঝল না। ইয়ে বহত আফসোস কি বাত হ্যায়! যাকগে, কথা আর আগে বাড়তে দেব না। যা বলার তা সাফ আপনার মুখের ওপর বলে দেব: চলতি সপ্তাহে নারী ও পুরুষ মীন প্রচণ্ড একটা দ্বিধাদ্বন্দ্বের মধ্যে পড়বেন। এটা ঘটবে প্রধানত তার ভালোবাসা এবং দাম্পত্য জীবনের মাঝখানে। ঝাপটা মেরে এই বাজে অবস্থা থেকে বেরিয়ে আসুন। চেয়ে দেখুন শরতের নীল আকাশজুড়ে বাজছে বিষ্ণু দের কবিতা: আশ্বিন বুঝি, আশ্বিনে কাঁপে ঘর/হালকা হাওয়ায় চাঁদের স্বচ্ছ স্বর।...

আপনি নিজেই আপনার ভাগ্য নিয়ন্ত্রণ করতে পারেন শতকরা ৯০ থেকে ৯৬ ভাগ। বাকিটা আমরা ফেট বা নিয়তি বলতে পারি। ভাগ্য অনেক সময় অনির্দিষ্ট কারণে আপনা থেকেও গতিপথ বদলাতে পারে। এখানে রাশিচক্রে আমি ‘নিউমারলজি’ বা ‘সংখ্যা-জ্যোতিষ’ পদ্ধতি প্রয়োগ করেছি—কাওসার আহমেদ চৌধুরী

var $div=$('
').append($('#ari-noscript').text()).attr('itemprop','articleBody').addClass('viewport');var $images=$div.find('.jwMediaContent');for(var i in $images){if(typeof $images[i]=='object')$($images[i]).removeAttr('src').removeClass(function(){return $(this).attr('class').replace(/b(?:alignright|alignleft)bs*/g,'');});;}$('#ari-noscript').parent().replaceWith($div);var parentWidth=$div.width();$images.each(function(){var data=$.parseJSON($(this).data('jadewitsmedia').replace(/'/g,'"'));if(data){var prop={width:0,height:0,wrapCaption:jwARI.caption(data['title'],data['caption']),viewPort:'.jw_detail_content_holder',url:cannonical_url+'#image-'+data.id};if(data['align']==''){if($(this).hasClass('alignright'))data['align']='alignright';if($(this).hasClass('alignleft'))data['align']='alignleft';}if(data['align']=='alignright'||data['align']=='alignleft'){if(parseFloat(data.width)>Math.floor(parentWidth*0.62)){prop.width=parentWidth;if(data.height&&data.height>64){prop.height=jwARI.ratio(data.height,data.width,parentWidth);}else{delete prop.height;delete data.height;}data['align_current']='alignfull';}else if(!data.width){prop.width=300;delete prop.height;delete data.height;}else{prop.width=data.width;if(data.height&&data.height>64){prop.height=data.height;}else{delete prop.height;delete data.height;}}}else{if(data.height&&data.height<50){delete prop.height;delete data.height;}else{if(data.width){prop.width=data.width;prop.height=data.height;}else{delete prop.width;delete data.width;}prop.height=data.height;}data['align']='alignfull';}var tmp=$.extend(prop,data);$(this).data('ari',tmp);jwARI.fetch($(this));}});