রোনালদোর মতো মেসিকেও রাগাতে চায় আইসল্যান্ড!

দুই বছর আগের সেই ১-১ ড্র ম্যাচে আইসল্যান্ডের রক্ষণাত্মক কৌশলে ভীষণ ক্ষেপেছিলেন রোনালদো। প্রতিপক্ষ ছোট মানসিকতার বলেও কড়া সমালোচনা করেছিলেন পর্তুগালের এই তারকা ফরোয়ার্ড। গুডমুন্ডসনের চাওয়া রোনালদোর চেয়ে মেসিকে বেশি খেপানোর সে অবশ্যই খেপে গিয়েছিল, কারণ তারা দ্বিতীয় গোল করতে পারেনি। এটা আমাদের বড় কোনো প্রতিযোগিতায় প্রথম ম্যাচ ছিল এবং পর্তুগাল আইসল্যান্ডকে হারাতে পারেনি। তাই এটা তাদের জন্য ভালো ছিল না। রোনালদো একজন জয়ী, তাই সে ক্ষুব্ধ হয়েছিল। মেসির বিপক্ষে খেলা কঠিন হবে কিন্তু যতক্ষণ সে হতাশ থাকবে এবং গোল করতে পারবে না, আমরা খুশি। তাদের হারানোর এবং মেসিকে (রোনালদোর চেয়ে) আরও বেশি রাগানোর চেষ্টা করা যাক। আগামী শনিবার বাংলাদেশ সময় সন্ধ্যা ৭টায় মস্কোর স্পার্তাক স্টেডিয়ামে নিজেদের প্রথম ম্যাচে আর্জেন্টিনার মুখোমুখি হবে আইসল্যান্ড। ডি গ্রুপের অপর দুই দল নাইজেরিয়া ও ক্রোয়েশিয়া।গুডমুন্ডসনের দাবি, ড্রয়ে নিজেদের গ্রুপে আর্জেন্টিনা বা ব্রাজিলকে চেয়েছিলেন তিনি। প্রথমবারের মতো বিশ্বকাপ খেলতে আসা আইসল্যান্ড আর্জেন্টিনার রক্ষণের দুর্বলতা কাজে লাগাতে পারবে বলেও আশাবাদী বার্নলির এই মিডফিল্ডার। ড্রর সময় আমি বলেছিলাম, আমি ব্রাজিল বা আর্জেন্টিনাকে চাই এবং আমরা তাদের একটাকে পেয়েছি। ইউরোতে আমরা প্রথম ম্যাচ খেলেছিলাম রোনালদোর বিপক্ষে এবং এখন মেসির বিপক্ষে। আমরা রোনালদোকে পুরোপুরি শান্ত রাখতে পেরেছিলাম। আশা করি, একইভাবে মেসিকেও পারব। আমরা জানি, আমরা সম্ভবত অনেকটা সময় রক্ষণই সামলাবো এবং মেসি এটাকে পাল্টে দিতে পারে কিন্তু আমাদের শুধু দেখতে হবে, এটা আমাদের কোথায় নিয়ে যায়। আক্রমণভাগ অনুযায়ী এই টুর্নামেন্টে অন্যতম সেরা আর্জেন্টিনা কিন্তু সম্ভবত আক্রমণভাগের মতো রক্ষণে তাদের সর্বোচ্চ পর্যায়ে থাকা খেলোয়াড় কম। আশা করি, আমরা সেই সুযোগটা কাজে লাগাব।